ঢাকা ০৮:২৯ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪, ৫ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

এবিসি ন্যাশনাল নিউজ২৪ ইপেপার

ব্রেকিং নিউজঃ
ভেড়ামারায় ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স এসোসিয়েশন আয়োজিত ঈদ পুনর্মিলনী ঠাকুরগাঁওয় পৌরসভার সড়কের বেহাল দশা, অল্প বৃষ্টিতে তলিয়ে যায় পুরো এলাকা বগুড়ার জোড়া খুনের প্রধান আসামী গ্রেফতার বালিয়াডাঙ্গীতে এইচএসসি ২০০২ ব্যাচের ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠিত দিনাজপুরে শ্যামলী পরিবহনের ধাঁক্কায় এ্যাম্বুলেন্স চালকের মর্মান্তিক মৃত্যু রংপুরে তিস্তার পানি বিপৎসীমার ওপরে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত ডোমারে জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে পালিত হলো শতবর্ষী অনুষ্ঠান লালমনিরহাটে বজ্রপাতে ৫ টি গবাদিপশু পুড়ে যায় বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটি (বিএমএসএস) নারায়ণগঞ্জ জেলা কমিটির সভাপতি এস এম জহিরুল ইসলাম বিদ্যুত ও সাধারণ সম্পাদক মো: জসিম উদ্দিন জসিম ডোমারে পবিত্র ঈদ-উল-আযহার নামাজ অনুষ্ঠিত

যশোর বাঘারপাড়ায় সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা জয় 

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১১:৩৭:১৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ অক্টোবর ২০২২ ৪৭ বার পড়া হয়েছে

মোঃওবাইদুল হক স্টাফ রিপোর্টার যশোর।।

আগামী ১৭ অক্টোবর যশোর জেলা পরিষদ নির্বাচন ঘিরে শেষ মুহুর্তে জমে উঠেছে প্রচারণা। বাঘারপাড়ার উপজেলার (৫ নং ওয়ার্ড) সদস্য প্রার্থী আওয়ামী লীগ নেতা সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা টিউবওয়েল প্রতিক নিয়ে ব্যাপক গণসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন। উন্নয়নের বার্তা দিয়ে দিন-রাত দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে ছুটছেন ইউনিয়ন পরিষদ, পৌরসভা ও উপজেলা পরিষদ ভবনে। সেখানকার জনপ্রতিনিধিদের মন জয় করতে প্রাণপণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। এর বাইরেও ফেসবুকে সমানতালে প্রচারণা চালাচ্ছেন ভোলার সমর্থকেরা।

সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা উপজেলা যুবলীগের প্রতিষ্ঠাকালীন সাধারণ সম্পাদক প্রয়াত প্রধান শিক্ষক নুরুজ্জামান চৌধুরী মনু’র ছেলে। বাঘারপাড়ায় আওয়ামী রাজনীতির অন্যতম গোড়াপত্তনকারী, বুদ্ধি-পরামর্শ ও দিকনির্দেশক হিসেবে দলকে চাঙ্গা রাখতে সহায়তা করতেন মনু মাস্টার। এ অপরাধেই ১৯৮৭ সালের ১৪ সেপ্টেম্বর যাদবপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শ্রেণীকক্ষে ঢুকে স্বশস্ত্র দুর্বৃত্তরা তাকে কুপিয়ে হত্যা করে।নব্বইয়ের দশকে বঙ্গবন্ধুর আদর্শের মহান ব্রত নিয়ে রাজনীতিতে হাতেখড়ি ঘটে সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলার। ১৯৯১ সালে বন্দবিলা ইউনিয়ন ও খাজুরা কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। পরবর্তীতে যুবলীগ এবং ২০০৫ সাল থেকে আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে যুক্ত হয়ে দলের দুঃসময়ে রাজপথের লড়াকু সৈনিক হিসেবে আন্দোলন-সংগ্রাম করে চলেছেন। পাশাপাশি পকেটের টাকা খরচ করে সাধ্যানুযায়ী জনসেবা চালিয়ে যাওয়ায় ইতিমধ্যে গরীবের বন্ধু হিসেবে পরিচিতি পেয়েছেন সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা। বাঘারপাড়া উপজেলায় ৯টি ইউনিয়ন, একটি পৌরসভা এবং উপজেলা চেয়ারম্যান ও দুই ভাইস চেয়ারম্যানসহ মোট ১৩৩ জন ভোটার এই নির্বাচনে ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। এর মধ্যে সিংহভাগ জনপ্রতিনিধিই আওয়ামী লীগ রাজনীতির সাথে যুক্ত। তারা সবাই উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও এমপি রণজিৎ রায় বলয়ের রাজনীতি করেন। টিউবওয়েল প্রতিকের সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা এমপি বলয় ও ক্লিন ইমেজের হওয়ায় ভোটের মাঠে শক্ত অবস্থানে রয়েছেন তিনি। তবে এই নির্বাচনকে ঘিরে রাজনীতির নানা হিসাব-নিকাশ আছে, আছে বিশ্বাস-অবিশ্বাস, প্রত্যাশা-প্রত্যাখ্যানের দ্বন্দ্ব। তবে সবকিছু ভুলে দলের জন্য ভোলা’র পরিবারের আত্মত্যাগের প্রতি সম্মান জানিয়ে ভোটাররা টিউবওয়েল প্রতিকেই ভোট দিবেন বলে মনে করেন উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রবীণ নেতারা। সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা বলেন, ‘ভোটারদের কাছে গিয়ে ব্যাপক সাড়া পাচ্ছি। যারা বঙ্গবন্ধুর আদর্শে রাজনীতি করেন তাদেরকে কখনো অর্থ দিয়ে কেনা যায় না। আমার পরিবারের আত্মত্যাগের প্রতি সম্মান জানিয়ে ভালোবেসেই ভোটাররা তাদের মূল্যবান ভোটটি আমাকে দিবেন বলে বিশ্বাস করি। জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদী আমি।

শেয়ার করুন

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

যশোর বাঘারপাড়ায় সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা জয় 

আপডেট সময় : ১১:৩৭:১৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ অক্টোবর ২০২২

মোঃওবাইদুল হক স্টাফ রিপোর্টার যশোর।।

আগামী ১৭ অক্টোবর যশোর জেলা পরিষদ নির্বাচন ঘিরে শেষ মুহুর্তে জমে উঠেছে প্রচারণা। বাঘারপাড়ার উপজেলার (৫ নং ওয়ার্ড) সদস্য প্রার্থী আওয়ামী লীগ নেতা সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা টিউবওয়েল প্রতিক নিয়ে ব্যাপক গণসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন। উন্নয়নের বার্তা দিয়ে দিন-রাত দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে ছুটছেন ইউনিয়ন পরিষদ, পৌরসভা ও উপজেলা পরিষদ ভবনে। সেখানকার জনপ্রতিনিধিদের মন জয় করতে প্রাণপণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। এর বাইরেও ফেসবুকে সমানতালে প্রচারণা চালাচ্ছেন ভোলার সমর্থকেরা।

সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা উপজেলা যুবলীগের প্রতিষ্ঠাকালীন সাধারণ সম্পাদক প্রয়াত প্রধান শিক্ষক নুরুজ্জামান চৌধুরী মনু’র ছেলে। বাঘারপাড়ায় আওয়ামী রাজনীতির অন্যতম গোড়াপত্তনকারী, বুদ্ধি-পরামর্শ ও দিকনির্দেশক হিসেবে দলকে চাঙ্গা রাখতে সহায়তা করতেন মনু মাস্টার। এ অপরাধেই ১৯৮৭ সালের ১৪ সেপ্টেম্বর যাদবপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শ্রেণীকক্ষে ঢুকে স্বশস্ত্র দুর্বৃত্তরা তাকে কুপিয়ে হত্যা করে।নব্বইয়ের দশকে বঙ্গবন্ধুর আদর্শের মহান ব্রত নিয়ে রাজনীতিতে হাতেখড়ি ঘটে সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলার। ১৯৯১ সালে বন্দবিলা ইউনিয়ন ও খাজুরা কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। পরবর্তীতে যুবলীগ এবং ২০০৫ সাল থেকে আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে যুক্ত হয়ে দলের দুঃসময়ে রাজপথের লড়াকু সৈনিক হিসেবে আন্দোলন-সংগ্রাম করে চলেছেন। পাশাপাশি পকেটের টাকা খরচ করে সাধ্যানুযায়ী জনসেবা চালিয়ে যাওয়ায় ইতিমধ্যে গরীবের বন্ধু হিসেবে পরিচিতি পেয়েছেন সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা। বাঘারপাড়া উপজেলায় ৯টি ইউনিয়ন, একটি পৌরসভা এবং উপজেলা চেয়ারম্যান ও দুই ভাইস চেয়ারম্যানসহ মোট ১৩৩ জন ভোটার এই নির্বাচনে ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। এর মধ্যে সিংহভাগ জনপ্রতিনিধিই আওয়ামী লীগ রাজনীতির সাথে যুক্ত। তারা সবাই উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও এমপি রণজিৎ রায় বলয়ের রাজনীতি করেন। টিউবওয়েল প্রতিকের সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা এমপি বলয় ও ক্লিন ইমেজের হওয়ায় ভোটের মাঠে শক্ত অবস্থানে রয়েছেন তিনি। তবে এই নির্বাচনকে ঘিরে রাজনীতির নানা হিসাব-নিকাশ আছে, আছে বিশ্বাস-অবিশ্বাস, প্রত্যাশা-প্রত্যাখ্যানের দ্বন্দ্ব। তবে সবকিছু ভুলে দলের জন্য ভোলা’র পরিবারের আত্মত্যাগের প্রতি সম্মান জানিয়ে ভোটাররা টিউবওয়েল প্রতিকেই ভোট দিবেন বলে মনে করেন উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রবীণ নেতারা। সাইফুজ্জামান চৌধুরী ভোলা বলেন, ‘ভোটারদের কাছে গিয়ে ব্যাপক সাড়া পাচ্ছি। যারা বঙ্গবন্ধুর আদর্শে রাজনীতি করেন তাদেরকে কখনো অর্থ দিয়ে কেনা যায় না। আমার পরিবারের আত্মত্যাগের প্রতি সম্মান জানিয়ে ভালোবেসেই ভোটাররা তাদের মূল্যবান ভোটটি আমাকে দিবেন বলে বিশ্বাস করি। জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদী আমি।

শেয়ার করুন