ঢাকা ০২:১৩ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

এবিসি ন্যাশনাল নিউজ২৪ ইপেপার

ব্রেকিং নিউজঃ
খোকসা উসাসের পক্ষে থেকে নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যানকে ফুলের শুভেচ্ছা। বগুড়ায় নারী চিকিৎসক মাত্রাতিরিক্ত ঘুমের ট্যালেট সেবনে আত্মহত্যা তিস্তা সেতুর মাঝখানে ফাটল আতঙ্কে পথযাত্রীরা। ঈমান রক্ষার দোয়া। হাফিজ মাছুম আহমদ দুধরচকী। ভারতের সঙ্গে সম্পর্ককে বিশেষ গুরুত্ব দেয় বাংলাদেশ: শেখ হাসিনা আমতলীতে বৌ-ভাতের অনুষ্ঠানে আসার পথে ব্রীজ ভেঙ্গে ৯জন নিহত ঢাকা-দিল্লি সম্পর্ক আরও গভীর করতে ৭টি নতুন সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর ঠাকুরগাঁওয়ে পুলিশের অভিযানে ৫ মাদক ব্যবসায়ি গ্রেফতার –মাদক উদ্ধার ! দিল্লী সফর শেষে দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী ঠাকুরগাঁওয়ের স্ত্রীর মামলার আসামি পলাতক স্বামী জাহাঙ্গীর আলম গ্রেফতার ।

একটা আটক করলে ১০টা ছেড়ে দেওয়া হয় এই নাটক রেঞ্জার সাইফুলের 

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৮:৫৩:৫৪ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৮ অক্টোবর ২০২২ ৪৫ বার পড়া হয়েছে

কামরুল ইসলাম চট্টগ্রাম, চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার পদুয়া ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডস্থ আইম্যাঘুনা (হাড়ির দরগাহর পূর্ব পাশ) থেকে হাঙ্গর বিটের মিয়া ও পদুয়া রেঞ্জের রেঞ্জার সাইফুলের যোগ সাজসে রাতের আঁধারে চুরি করে নিয়ে যাচ্ছে শত শত গাড়ি গাছ এই দৃশ্য চোখে পড়ার অথচ রেঞ্জার সাইফুল সহ হাঙর বিটের মিয়া সাহেব নিরবতা পালন করছেন। অন্য দিকে মাঝে মধ্যে একটা দুই টা গাড়ি আটক করে এবং তা আবার কিছু সাংবাদিক দিয়ে প্রচার প্রচারণা করে এই ভাবে সরকার ও উপর মহলকে ফাঁকি দিয়ে যাচ্ছে রেঞ্জার সাইফুল ও হাঙর বিটের মিয়া সাহেব পাচারের সময় গাছসহ নাম্বারবিহীন একটা ডাম্প ট্রাক আটক করেছে পদুয়া বন বিভাগ।

 

এই আটক কৃর্ত গাছ ও ডাম্পারের বিষয়ে জানতে গিয়ে জানাযায় ২৬ অক্টোবর রাত আনুমানিক ১১টার সময় হাঙ্গর বিট কর্মকর্তা মাহবুব হোসেন ফেরদৌস ও লোহাগাড়া থানা পুলিশের একটি টিম যৌথভাবে অভিযান চালিয়ে গাছসহ গাড়িটি জব্দ করেন।

 

জানা যায়, ১৯৮৫ সালে (গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার) কর্তৃক উপজেলার পদুয়া ৩নং ওয়ার্ডের মৃত ইসমাইলের পুত্র যথাক্রমে মমতাজ আহমদ, মোক্তার আহমদ ও মুহাম্মদ মুফিজুর রহমান উল্লেখিত এলাকায় এক একর চল্লিশ শতক করে (৩ প্লট) জায়গা লিজ নেয়। এরপর থেকে তারা জায়গাটি ভোগদখলে স্থিত রয়েছে। কিন্তু অতর্কিতভাবে সোমবার রাতে কিছু দুষ্কৃতকারী লোক রাতের আঁধারে পাঁচ শতাধিক ম্যালেরিয়া/ ইউক্লিটিয়াস গাছ কর্তন করে বিক্রির উদ্যশ্যে পাচার করার চেষ্টা করে। বিষয়টি মালিকপক্ষ বনবিভাগ ও থানা পুলিশকে অবহিত করেন এবং লোহাগাড়া থানার অভিযানে গাছ সহ ডাম্পার টি আটক হয় কিন্ত এই আটকের বিষয়ে উপর মহল থেকে বাহবা পাওয়ার জন্য সাংবাদিক ডেকে নিয়ে গিয়ে এই বিষয়ে নিউজ করেন পদুয়া রেঞ্জের রেঞ্জার সাইফুল ও হাঙর বিটের মিয়া সাহেব মাহাবুব এই পদুয়া রেঞ্জের রেঞ্জের রেঞ্জার সাইফুল ও হাঙর বিটের মিয়া সাহেব মাহাবুবের বিরুদ্ধে বিয়াপক অভিযোগ রয়েছে তাই এই বিষয়ে তদন্ত করার জন্য অনুরোধ জানিয়েছেন এলাকাবাসী ।

তাদের অভিযোগের ভিত্তিতে এ অভিযান পরিচালনা করে নাম্বারবিহীন ডাম্প ট্রাকসহ শতাধিক গাছ জব্দ করা হয়।

 

এ বিষয়ে পদুয়া বন রেঞ্জ কর্মকর্তা সাইফুল ইসলামের সাথে কথা বলতে মোবাইলে ফোন করে এবং অফিসে গিয়ে থাকে পাওয়া যায়নি। বন বিভাগের এক গার্ড নাম গোপন করে বলেন এই বিষয়ে পুলিশ জানার আগে রেঞ্জার ও মিয়া সাহেব জানে কিন্তু মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে চুপ করে ছিলেন এই ভাবে দিনের দিন সরকারি সম্পদ লুটপাট হয়ে যাচ্ছে এতে করে সরকার হারাচ্ছে মোটা অংকের রাজস্ব এই বিষয় টি পুলিশ পযন্ত জানতে পারায় শেষ রক্ষা পেলনা রেঞ্জার ও মিয়া সাহেব সহ গাছ পাচার কারি চক্র রাতের আঁধারে গাছ কেটে পাচারের খবর পেয়ে পুলিশ এবং হাঙ্গর বিট কর্মকর্তা মাহবুব হোসেন ফেরদৌস সহ বনবিভাগের একটি টিম ঘটনাস্থলে গিয়ে গাছসহ নাম্বারবিহীন ডাম্পার ট্রাক ও শতাধিক ম্যালেরিয়া গাছ জব্দ করেছে। পুলিশ ও বনবিভাগের সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে গাড়ির চালকসহ চোরেরা পালিয়ে যায়। এ বিষয়ে বন আইন মামলায় মামলা রুজু করা হয়েছে। বর্তমানে নাম্বারবিহীন ডাম্প ট্রাক ও গাছগুলো বনবিভাগের হেফাজতে রয়েছে বলেও তিনি জানান।

শেয়ার করুন

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

একটা আটক করলে ১০টা ছেড়ে দেওয়া হয় এই নাটক রেঞ্জার সাইফুলের 

আপডেট সময় : ০৮:৫৩:৫৪ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৮ অক্টোবর ২০২২

কামরুল ইসলাম চট্টগ্রাম, চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার পদুয়া ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডস্থ আইম্যাঘুনা (হাড়ির দরগাহর পূর্ব পাশ) থেকে হাঙ্গর বিটের মিয়া ও পদুয়া রেঞ্জের রেঞ্জার সাইফুলের যোগ সাজসে রাতের আঁধারে চুরি করে নিয়ে যাচ্ছে শত শত গাড়ি গাছ এই দৃশ্য চোখে পড়ার অথচ রেঞ্জার সাইফুল সহ হাঙর বিটের মিয়া সাহেব নিরবতা পালন করছেন। অন্য দিকে মাঝে মধ্যে একটা দুই টা গাড়ি আটক করে এবং তা আবার কিছু সাংবাদিক দিয়ে প্রচার প্রচারণা করে এই ভাবে সরকার ও উপর মহলকে ফাঁকি দিয়ে যাচ্ছে রেঞ্জার সাইফুল ও হাঙর বিটের মিয়া সাহেব পাচারের সময় গাছসহ নাম্বারবিহীন একটা ডাম্প ট্রাক আটক করেছে পদুয়া বন বিভাগ।

 

এই আটক কৃর্ত গাছ ও ডাম্পারের বিষয়ে জানতে গিয়ে জানাযায় ২৬ অক্টোবর রাত আনুমানিক ১১টার সময় হাঙ্গর বিট কর্মকর্তা মাহবুব হোসেন ফেরদৌস ও লোহাগাড়া থানা পুলিশের একটি টিম যৌথভাবে অভিযান চালিয়ে গাছসহ গাড়িটি জব্দ করেন।

 

জানা যায়, ১৯৮৫ সালে (গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার) কর্তৃক উপজেলার পদুয়া ৩নং ওয়ার্ডের মৃত ইসমাইলের পুত্র যথাক্রমে মমতাজ আহমদ, মোক্তার আহমদ ও মুহাম্মদ মুফিজুর রহমান উল্লেখিত এলাকায় এক একর চল্লিশ শতক করে (৩ প্লট) জায়গা লিজ নেয়। এরপর থেকে তারা জায়গাটি ভোগদখলে স্থিত রয়েছে। কিন্তু অতর্কিতভাবে সোমবার রাতে কিছু দুষ্কৃতকারী লোক রাতের আঁধারে পাঁচ শতাধিক ম্যালেরিয়া/ ইউক্লিটিয়াস গাছ কর্তন করে বিক্রির উদ্যশ্যে পাচার করার চেষ্টা করে। বিষয়টি মালিকপক্ষ বনবিভাগ ও থানা পুলিশকে অবহিত করেন এবং লোহাগাড়া থানার অভিযানে গাছ সহ ডাম্পার টি আটক হয় কিন্ত এই আটকের বিষয়ে উপর মহল থেকে বাহবা পাওয়ার জন্য সাংবাদিক ডেকে নিয়ে গিয়ে এই বিষয়ে নিউজ করেন পদুয়া রেঞ্জের রেঞ্জার সাইফুল ও হাঙর বিটের মিয়া সাহেব মাহাবুব এই পদুয়া রেঞ্জের রেঞ্জের রেঞ্জার সাইফুল ও হাঙর বিটের মিয়া সাহেব মাহাবুবের বিরুদ্ধে বিয়াপক অভিযোগ রয়েছে তাই এই বিষয়ে তদন্ত করার জন্য অনুরোধ জানিয়েছেন এলাকাবাসী ।

তাদের অভিযোগের ভিত্তিতে এ অভিযান পরিচালনা করে নাম্বারবিহীন ডাম্প ট্রাকসহ শতাধিক গাছ জব্দ করা হয়।

 

এ বিষয়ে পদুয়া বন রেঞ্জ কর্মকর্তা সাইফুল ইসলামের সাথে কথা বলতে মোবাইলে ফোন করে এবং অফিসে গিয়ে থাকে পাওয়া যায়নি। বন বিভাগের এক গার্ড নাম গোপন করে বলেন এই বিষয়ে পুলিশ জানার আগে রেঞ্জার ও মিয়া সাহেব জানে কিন্তু মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে চুপ করে ছিলেন এই ভাবে দিনের দিন সরকারি সম্পদ লুটপাট হয়ে যাচ্ছে এতে করে সরকার হারাচ্ছে মোটা অংকের রাজস্ব এই বিষয় টি পুলিশ পযন্ত জানতে পারায় শেষ রক্ষা পেলনা রেঞ্জার ও মিয়া সাহেব সহ গাছ পাচার কারি চক্র রাতের আঁধারে গাছ কেটে পাচারের খবর পেয়ে পুলিশ এবং হাঙ্গর বিট কর্মকর্তা মাহবুব হোসেন ফেরদৌস সহ বনবিভাগের একটি টিম ঘটনাস্থলে গিয়ে গাছসহ নাম্বারবিহীন ডাম্পার ট্রাক ও শতাধিক ম্যালেরিয়া গাছ জব্দ করেছে। পুলিশ ও বনবিভাগের সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে গাড়ির চালকসহ চোরেরা পালিয়ে যায়। এ বিষয়ে বন আইন মামলায় মামলা রুজু করা হয়েছে। বর্তমানে নাম্বারবিহীন ডাম্প ট্রাক ও গাছগুলো বনবিভাগের হেফাজতে রয়েছে বলেও তিনি জানান।

শেয়ার করুন